সেই ম্যাজিষ্ট্রটের বিরুদ্ধে কোটি টাকার মামলা

মঙ্গলবার, ০৯ জুন ২০১৫

সেই ম্যাজিষ্ট্রটের বিরুদ্ধে কোটি টাকার মামলা

 

pir1890পিরোজপুরঃ পরীক্ষা কেন্দ্রে ম্যাজিস্ট্রেটের সঙ্গে বাকবিতণ্ডার জের ধরে ছুয়ে ক্ষমা চাইতে বাধ্য করার ঘটনায় আদালতে কোটি টাকার মানহানি মামলা দায়ের করেছেন সেই ভুক্তভোগী কলেজ শিক্ষক।


সোমবার সকালে ভাণ্ডারিয়া সরকারি কলেজের সহকারী অধ্যাপক মোনতাজ উদ্দীন পিরোজপুর চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সত্য ব্রত রায়ের আদালতে মামলাটি দায়ের করেন। মামলায় তৎকালীন ভাণ্ডারিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ মনির হোসেন হাওলাদার ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) আশ্রাফুল ইসলামকে অভিযুক্ত করা হয়েছে।  আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে ১৭ জুন পরবর্তী শুনানির দিন ধার্য করেন ।

গত ৯ এপ্রিল এইচএসসি ইংরেজি প্রথম পত্র পরীক্ষা চলাকালীন বাকবিতণ্ডাকে কেন্দ্র করে পিরোজপুরের ভাণ্ডারিয়া সরকারি কলেজ পরীক্ষা কেন্দ্রে অধ্যক্ষের কক্ষে অধ্যক্ষ প্রফেসর এ বি এম ফারুকুজ্জামান ও ইউএনও মোহাম্মদ মনির হোসেন হাওলাদারের উপস্থিতিতে  প্রকাশ্যে সহকারী অধ্যাপক মোনতাজ উদ্দীনকে সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও ম্যাজিস্ট্রেট আশ্রাফুল ইসলামের পা ধরে ক্ষমা চাইতে বাধ্য করান।

এ ঘটনায় সারাদেশে সরকারি কলেজশিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা বিক্ষুব্ধ হয়ে লাগাতার আন্দোলন কর্মসূচি দিলে প্রশাসনে ব্যাপক তোলপাড় শুরু হয়। এরপর ইউএনও মোহাম্মদ মনির হোসেন হাওলাদারকে ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলায়, সহকারী কমিশনার (ভূমি) আশরাফুল ইসলামকে বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলায় ও কলেজ অধ্যক্ষ মো. ফারুকুজ্জামানকে বরিশালের চাখার সরকারি কলেজে বদলি করা হয়।

গণমাধ্যম এবং সামাজিক ওয়েবসাইট ফেসবুকের মাধ্যমে বিষয়টি সারাদেশে ছড়িয়ে পড়ে।

 শনিবারের চিঠি / আটলান্টা / ০৯ জুন ২০১৫

 

 

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ৫:৩৭ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ০৯ জুন ২০১৫

https://thesaturdaynews.com |

Development by: webnewsdesign.com