রাজধানীতে শিশু হত্যার অভিযোগে হাসপাতাল মালিক আটক

শুক্রবার, ০৭ জানুয়ারি ২০২২

রাজধানীতে শিশু হত্যার অভিযোগে হাসপাতাল মালিক আটক
রাজধানীর শ্যামলীর আমার বাংলাদেশ হসপিটাল [ ছবিঃ সংগৃহীত ]

টাকার জন্য এনআইসিউতে চিকিৎসাধীন যমজ দুই শিশুকে বের করে দিলে শিশুকে অন্য হাসপাতালে নেয়ার পথে এক শিশু মারা যায় । শিশুদের বের করে দেয়া এবং শিশু হত্যার অভিযোগে শ্যামলীর ‘আমার বাংলাদেশ হসপিটাল’-এর মালিক গোলাম সারওয়ারকে আজ শুক্রবার  আটক করেছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব) ।

র‍্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘সুনির্দিষ্ট তথ্যের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে গোলাম সারওয়ারকে আটক করা হয়েছে।’


র‍্যাবের একটি সূত্র জানিয়েছে, গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় শ্যামলীর আমার বাংলাদেশ হসপিটালে থেকে বিল দিতে না পারায় এনআইসিউতে চিকিৎসাধীন যমজ দুই শিশুকে বের করে দেওয়া হয়। সেখান থেকে অন্য হাসপাতালে নেওয়ার পথে দুই শিশুর একজন মারা যায়। মারা যাওয়া শিশুর নাম আহমেদ, বয়স ৬ মাস। আরেক শিশু আব্দুল্লাহকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

সূত্রটি আরও জানায়, গত পহেলা জানুয়ারি যমজ দুই শিশু অসুস্থ হয়ে পড়লে তাদের সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে আইসিইউ না থাকায় পরের দিন এক দালাল কম টাকায় ভালো চিকিৎসার কথা বলে শ্যামলীর আমার বাংলাদেশ হসপিটালে নিয়ে যায়।

শিশুটির পরিবার বলছে, ওই হাসপাতালে ৭২ ঘণ্টায় এক লাখ ২৬ হাজার টাকা বিল আসে। এত টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে কর্তৃপক্ষ শিশুর মাকে মারধর করে। তাদের পায়ে ধরলেও অকথ্য ভাষায় গালাগাল করে। ৪০ হাজার টাকা দেওয়ার পর অসুস্থ বাচ্চাসহ তাদের হাসপাতাল থেকে বের করে দেওয়া হয়। পরে ফার্মেসিতে বাকি থাকা ওষুধের টাকা নেওয়ার জন্য শাহিন নামের একজনকে পরিবারের সঙ্গে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায় কর্তৃপক্ষ। হাসপাতালের আসার পথে আহমেদ মারা যায়।

 আমাদের সর্বশেষ আবডেট জানতে ফেসবুকের সাথেই থাকুন

 

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ৭:২৩ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ০৭ জানুয়ারি ২০২২

https://thesaturdaynews.com |

Development by: webnewsdesign.com