যেখানে হিন্দুর হাঁকে সেহরি খান মুসলিমরা

বুধবার, ২২ জুন ২০১৬

যেখানে হিন্দুর হাঁকে সেহরি খান মুসলিমরা

Happy Ramadanআন্তর্জাতিকঃ রমজানে নির্ধারিত সময়ের মধ্যেই মুসলিম পরিবারগুলো যাতে সেহরি খেয়ে নিতে পারেন তা নিশ্চিত করছেন ভারতের উত্তর প্রদেশের এক হিন্দু পরিবার। ঘড়ির কাঁটায় রাত ঠিক ১টা। ভারতের উত্তর প্রদেশের মুসলিম অধ্যুষিত বিখ্যাত বেনারসি পল্লী মোবারকপুরের মানুষ গভীর ঘুমে আচ্ছন্ন। এ সময় ছেলে অভিষেককে (১২) নিয়ে জেগে গুলাব যাদব (৪৫)। বাপ-বেটা হাঁক দিয়ে মুসলিমদের ঘুম ভাঙাচ্ছেন, পবিত্র রমজানের সেহরি খাওয়ার জন্য। প্রত্যেক দিন তারা রাত ৩টা পর্যন্ত এ কাজ করেন।

যাদব এবং অভিষেক প্রতিটি মুসলিম পরিবারের দরজায় গিয়ে কড়া নাড়েন এবং জেগে উঠা পর্যন্ত অপেক্ষা করেন। হিন্দু পরিবারটি সম্প্রীতির এ অনন্য নজির গড়ে চলেছেন ৪৫ বছর ধরে। গুলাব যাদব এটি শিখেছেন তার বাবার কাছ থেকে।


১৯৭৫ সালে থিরকিত যাদব ব্যতিক্রমী এ উদ্যোগ নেন। খুব ছোটকাল থেকেই এ কাজে বাবার সঙ্গী হন গুলাব। বাবা মারা যাওয়ার পর বড় ভাই করতেন। এখন ছেলেকে নিয়ে তিনি একই কাজ করছেন। দিল্লিতে দিন মজুরের কাজ করেন গুলাব যাদব। কিন্তু রোজার মাসে এ কাজ করতে তিনি দিল্লি থেকে আজমগড়ের নিজ গ্রামে চলে আসেন। সেহরির জন্য মুসলিমদের ডেকে তিনি মানসিক প্রশান্তি পান বলে জানিয়েছেন।

শফিক নামে গুলাবের এক প্রতিবেশী জানান, ৪ বছর বয়স থেকেই তিনি এ রীতি দেখে আসছেন। এটা খুবই প্রশংসনীয় একটা কাজ। তিনি বলেন, ‘গুলাব যাদব দেড় ঘণ্টায় পুরো গ্রাম ঘুরে সেহরির জন্য হাঁক দেন। কেউ যাতে সেহরি মিস না করেন, সেজন্য তিনি ফের ঘরে ঘরে গিয়ে ডাকতে থাকেন।’

শনিবারের চিঠি/ আটলান্টা / জুন ২২,২০১৬

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ১০:২২ পূর্বাহ্ণ | বুধবার, ২২ জুন ২০১৬

https://thesaturdaynews.com |

Development by: webnewsdesign.com