মধু চাষে স্বাবলম্বী, রফতানির সুযোগ আছে

বৃহস্পতিবার, ০৮ জানুয়ারি ২০১৫

মধু চাষে স্বাবলম্বী, রফতানির সুযোগ আছে

 

H beeপ্রাকৃতিকভাবে মধু চাষ আহরণ ও বাজারজাত করে তিনি এখন স্বাবলম্বী। শুধু স্বাবলম্বীই নন তিনি এখন একজন সফল মধু ব্যবসায়ীও।


তার নাম জারজিস। রাজশাহীর পবা উপজেলার শ্যামপুর গ্রামে তার বাড়ি।

মধু চাষের জন্য জারজিস ২০০৪ সালে রাজশাহী কৃষি উন্নয়ন ব্যাংক থেকে ২৫ হাজার টাকা ঋণ নেন। বিভিন্ন ফসলের ক্ষেতে মাত্র ৬টি বাক্স বানিয়ে শুরু করেন তার কাজ। প্রথম বছরেই সংগ্রহ করেন ৪শ’ কেজি মধু। তার পরের বছর সংগ্রহ হয় দুই হাজার কেজি। এরপর তাকে আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি।

 সোমবার তার সফলতার কথা বলতে গিয়ে তিনি বলেন, ‘নভেম্বর থেকে জুন মাস পর্যন্ত মধু আহরণ চলে। প্রতিবছর এ সময় আমি ১৫০টি বাক্স ব্যবহার করে প্রায় ৫ হাজার কেজি মধু সংগ্রহ করি।

 ’ তিনি বলেন, এ ব্যবসায়ে তিনি প্রায় ৪০ লাখ টাকা বিনিয়োগ করেছেন। মধু প্রক্রিয়াকরণ কারখানার জন্য তিনি একতলা একটি বিল্ডিং নির্মাণ করেছেন। কারখানাটি এখনও পূর্ণাঙ্গ হয়নি। বর্তমানে প্রতি সপ্তাহে এই কারখানায় প্রায় ২শ’ কেজি মধু প্রক্রিয়াকরণ হয়। আর কারখানাটি পূর্ণাঙ্গ রূপ পেলে প্রতি দিন প্রায় ২শ’ কেজি মধু প্রক্রিয়াকরণ সম্ভব হবে।

 জারজিস বলেন, জেলায় অনেকেই মধু আহরণের সঙ্গে জড়িত। তারা প্রতিবছর প্রায় ৫০ টন মধু সংগ্রহ করেন। যথাযথ প্রশিক্ষণ, বাজারজাতকরণের অসুবিধা দূর এবং আধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করলে এর পরিমাণ দ্বিগুণ করা সম্ভব।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণী বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ড. মাহতাব আলী জানান, ‘মধু ব্যবসাকে দেশের জন্য লাখ- কোটি ডলারের ব্যবসায়ে পরিণত করা সম্ভব। এতে সৃষ্টি হবে বহু কর্মসংস্থানেরও।’ তিনি বলেন, ‘দেশে মধু চাষের ব্যাপক সম্ভাবনা থাকা সত্বেও আমাদের অভ্যন্তরীণ বাজারে অস্ট্রেলিয়া ও ভারতের মধুর এখনও অনেক চাহিদা রয়েছে।’ তিনি দুর্ভাগের বিষয় হলো বছরের ৬ মাস দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে মধু সংগ্রহ করা হলেও দেশে একটি মধু প্রক্রিয়াকরণ কারখানা নেই। অথচ ইউরোপের দেশগুলোতে মাত্র ৬ সপ্তাহ চলে মধু সংগ্রহের কাজ।

 প্রফেসর মাহতাব বলেন, বাংলাদেশে প্রতিবছর প্রায় দুই লাখ টন মধু উৎপাদন সম্ভব এবং তা বিদেশে রফতানিরও একটি নতুন সুযোগ সৃষ্টি হবে। শুধু মধু নয় রাণী মৌমাছি, মোম ও আঠাও রফতানি সম্ভব। – বাসস।

 

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ৮:৩৬ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ০৮ জানুয়ারি ২০১৫

https://thesaturdaynews.com |

Development by: webnewsdesign.com