বাগেরহাটের আঞ্চলিক ভাষার নির্মিত প্রথম ছায়াছবি  ‘সাহস’

বুধবার, ১৫ জুন ২০২২

বাগেরহাটের আঞ্চলিক ভাষার নির্মিত প্রথম ছায়াছবি  ‘সাহস’
বাগেরহাটের নীলা-রায়হানের প্রেমের গল্প ' সাহস'  [ ছবিঃ সংগৃহীত ]

 

বাগেরহাটের আঞ্চলিক ভাষায় স্থানীয়ভাবে নির্মিত ‘সাহস’  আগামিকাল ১৬ জুন বৃহস্পতিবার মুক্তি পেতে যাচ্ছে ওটিটি প্ল্যাটফর্ম চরকিতে।


ঢাকার পরিবেশ ও আবহাওয়ায় বড় হয়েও বাগেরহাটের আঞ্চলিক ভাষায় সিনেমা নির্মাণ করেছেন তরুণ পরিচালক সাজ্জাদ খান। ‘সাহস’ দিয়ে তার অভিষেক ঘটছে।

বাগেরহাটের নীলা-রায়হানের প্রেমের গল্প এটি। আচমকা ঝড়ে লণ্ডভণ্ড হয়ে যায় তাদের সম্পর্ক। ঘুরে যায় জীবনের কম্পাস। তবুও দমে না তারা। বুকে সাহস নিয়ে ঘুরে দাঁড়ায়, লড়াই করে প্রাণপণ।

এতে রায়হান চরিত্র দেখা যাবে মোস্তাফিজ নুর ইমরানকে। তার বেড়ে ওঠা, শৈশব, কৈশোর সব কেটেছে বাগেরহাটেই। সিনেমাটি নিয়ে তার আবেগের জায়গাটা একটু ভিন্ন।

অভিনেতা বলেন, ‘বাগেরহাট আমার নিজের শহর। অভিনেতা হিসেবে যদি বলি, এই শহরের হেঁটে-চলে অভিনয় করাটা আমার জন্য খুব উপভোগ্য ছিল। বাগেরহাটের মানুষ কখনও শুটিং দেখেনি, তার উপর আবার সিনেমা। গোটা শহরের মানুষ শুটিং দেখে খুব মজা পেয়েছে। ’

সিনেমাটির প্রধান নারী চরিত্রের অভিনেত্রী নাজিয়া হক অর্ষা বলেন, ‘আমি বাগেরহাটে গিয়ে জানতে পারি সেখানকার লোকাল ভাষায় শুটিং হবে। প্রথমে বেশ ভয়ই পেয়েছি। কিন্তু সবার সহযোগিতায় কাজটা শেষ করেছি। জানি না দর্শকের কতটুকু ভালো লাগবে তবে আমি চেষ্টা করেছি। ’

নির্মাতা সাজ্জাদ খান বলেন, ‘‘একদিন রাতে ইমরানের সাথে ফোনে কথা বলতে বলতে পরিকল্পনা হয় সিনেমাটি বানানোর। তারপরই তো সাহস নিয়ে ‘সাহস’ বানিয়ে ফেললাম। ’’

‘সাহস’ সিনেমায় অভিনয় করেছেন একঝাঁক নতুন অভিনেতা। যাদের বেশিরভাগই বাগেরহাটের স্থানীয়। খালিদ মাহবুব তূর্য, শাফিন সানি, রাজেশ সেন, রিজিয়া পারভীন, বাবুল রহমান, সাহেদ রানা, ইমরান হোসাইন ফার্সিসহ অনেকেই এতে অভিনয় করেছেন।

 

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ৫:৪৩ পূর্বাহ্ণ | বুধবার, ১৫ জুন ২০২২

https://thesaturdaynews.com |

Development by: webnewsdesign.com