জর্জিয়া বাংলাদেশ সমিতির বার্ষিক বনভোজন অনুষ্ঠিত

মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০১৯

জর্জিয়া বাংলাদেশ সমিতির বার্ষিক বনভোজন অনুষ্ঠিত

বিনোদনশনিবার বিনোদন রিপোর্টঃ জর্জিয়া বাংলাদেশ সমিতির  বার্ষিক বনভোজন ২০১৯ অনুষ্ঠিত হয়েছে। ১৪ জুলাই রবিবার স্থানীয় গুনেইট কাউন্টির জোনস ব্রীজ ষ্ট্রেট  পার্কে এই বনভোজন অনুষ্ঠিত হয়।

দুপুর ১২টা থেকে শুরু হয়ে সন্ধ্যে ৭ টা পর্যন্ত এই বনভোজন চলে । দুপুর থেকেই জর্জিয়ার বিভিন্ন এলাকা থেকে বনভোজনে অংশ গ্রহণকারীরা জোনস ব্রীজ ষ্ট্রেট  পার্কে জড়ো হতে থাকেন।  তরমুজ ও বিভিন্ন রকমের ফলমূল  দিয়ে অতিথিদের আপ্যায়ন করা হয়। সাথে থাকে সুস্বাদু চিকেন বারবিকিউ এরপর শুরু হয় ছোটদের ও বড়দের খেলাধুলার অনুষ্ঠান।


IMG_20190714_162620বিভিন্ন রকম খেলাধূলার মধ্যে শিশু কিশোরদের দৌড় ,মহিলাদের বাজনার তালে তালে  বালিশ চালনা । বালিশের পরিবর্তে সে কাজটি করা হয় একটি বল দিয়ে । এ ছাড়া মহিলাদের চোখ বন্ধ করে কলস ভাঙা । এ ক্ষেত্রেও কলসের বিকল্প থাকে একটি প্লাস্টিকের ড্রাম । খেলার বিজয়ীদের  বিশেষ পুরস্কার প্রদান করা হয় ।

খেলা শেষে  খাসির মাংস, পোলাও,  ডাল,  ভাত দিয়ে সকলকে ঐদিনের মধ্যহৃ ভোজ পরিবেশন করা হয় ।

IMG_20190714_163956বনভোজনে খেলাধুলার পাশাপাশি ছিল র‍্যাফেল  ড্র ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে সঙ্গীত পরিবেশন করেন স্থানীয় শিল্পী তানজিলা ইসলাম তৃষা,তাসকিনা তাজিব, আরজু,  সৈকত প্রধান প্রমুখ ।

IMG_20190714_165231র‍্যাফেল ড্রতে বিশেষ পুরস্কার ছিল ৫০ ইঞ্চি মাপের একটি রঙিন টেলিভিশন । এটি স্পন্সার করেন বিশিষ্ট রিয়েলটর  ব্যবসায়ী ইনামূল হক । অনুষ্ঠানে তিনি নিজে   থেকে বিজয়ীদের পুরস্কারটি প্রদান করেন । এ ছাড়াও এ্যাকুরিয়ান মর্টগেজ এজেন্সির মাহবুবর রহমান ভূঁইয়া, বেঙ্গলী বয়েস কালচারাল স্পোর্টস অ্যাসোসিয়েশন অব জর্জিয়ার পক্ষ থেকে মহিন উদ্দিন দুলালসহ বিভিন্ন জনে বিভিন্ন রকমের পুরস্কার সামগ্রী স্পন্সার করেন ।

IMG_20190714_175713অনুষ্ঠান সহযোগীতায় ছিলেন এ এইচ রাসেল, আরিফ আহমেদ, নজরুল ইসলাম, মোহাম্মদ রহমান রুবন, সাদমান সুমন, ইকবাল হোসেন, সৈকত প্রধান, লিওন বিশ্বাস, মোসাম্মৎ আরজু, মুসাম্মত নাহার, এ আর বাদল , রনদা প্রসাদ চৌধুরী, ইমদাদুল ইসলাম,নূর ভূঁইয়া, মারুফ ভূঁইয়া  প্রমুখ ।

IMG_20190714_181131সংগঠনের সভাপতি মোস্তফা মাহমুদ অনুষ্ঠানের সমাপনি বক্তব্যে বলেন , ‘ ‘জর্জিয়া বাংলাদেশ সমিতি ‘ জর্জিয়া প্রবাসী সকল বাংলাদেশিদের সংগঠন । আমরা কতিপয় প্রতিনিধি শুধু এর সেবক মাত্র। সবার সহযোগীতা এবং অংশগ্রহণে ভবিষ্যতে আরও বড় পরিসরে এ ধরনের আয়োজন অব্যাহত থাকবে।

বনভোজনের স্থানে  পার্কিংএর জায়গা  সীমিত থাকায় অনেকে বনভোজনে অংশ গ্রণন করতে এসে গাড়ি  পার্কিং  করতে না পেরে  ফিরে গেছেন বলে জানা যায় । এছাড়া অনেকে রাস্তার পাশে গাড়ি পার্ক করার গণহারে পুলিশের খাতায় জরিমানা যোগ্য  টিকিট পেয়েছেন । জর্জিয়া বাংলাদেশ সমিতি কর্তৃপক্ষের এই অপরিণামদর্শিতার অনেকে অভিযোগ করেছেন ।

শনিবারের চিঠি / আটলান্টা / জুলাই ১৬ , ২০১৯

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ১:১০ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০১৯

https://thesaturdaynews.com |

Development by: webnewsdesign.com