ছাত্র পেটানোর দায়ে প্রধান শিক্ষক বরখাস্ত

রবিবার, ২৪ মে ২০১৫

ছাত্র পেটানোর দায়ে প্রধান শিক্ষক বরখাস্ত

 

দিনাজপুরঃ দশম শ্রেণীর ছাত্র জাহিদুলকে পেটানোর দায়ে দিনাজুপরের বিরল আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মহিউদ্দীন আহাম্মেদকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করা হয়েছে। এ ঘটনায় কারণ দর্শানোর নোটিশও দেয়া হয়েছে।


রোববার দুপুরে বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি একেএম মোস্তাফিজুর রহমান বাবুর সভাপতিত্বে জরুরী সভায় এবং সব সদস্যের ঐক্যমতের ভিত্তিতে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

প্রধান শিক্ষক মহিউদ্দীনকে সাময়িকভাবে বরখাস্ত করার কারণে জ্যেষ্ঠতার ভিত্তিতে শিক্ষক নজরুল ইসলামকে ভারপ্রাপ্ত প্রধানের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।

এর আগে, গত ১৩ মে ছাত্র নির্যাতনের ঘটনায় টিপিও জুলফিকার আলী শাহকে প্রধান করে তিন সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। কমিটির অন্যান্য সদস্যরা হলেন- বিদ্যালয়ের টিআর প্রতিনিধি মেজবাহুন নেহার পলি ও অভিভাবক সদস্য আব্দুল জলিল। কমিটিকে আগামী এক মাসের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়।

উল্লেখ্য, বাড়িতে গিয়ে টিফিন খাওয়ার অপরাধে গত ১৩ মে বিরল আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর ছাত্র জাহিদুল ইসলামকে বেদম প্রহার করেন প্রধান শিক্ষক মহিউদ্দীন। এতে জাহিদুল অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়।

এ ব্যাপারে জাহিদুলের ভগ্নিপতি শফিকুল ইসলাম শফিক উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ করে অনুলিপি জেলা প্রশাসকসহ সংশ্লিষ্ট দপ্তরে পাঠান। পরে গত শনিবার বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতির কাছে লিখিত অভিযোগ করেন তিনি।

শনিবারের চিঠি / আটলান্টা / মে ২৪ ২০১৫

 

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ১০:৩০ অপরাহ্ণ | রবিবার, ২৪ মে ২০১৫

https://thesaturdaynews.com |

Development by: webnewsdesign.com