ঈশ্বরদীতে আওয়ামী লীগ ছাত্র লীগ সংঘর্ষঃ নিহত ১

বুধবার, ১৮ মার্চ ২০১৫

ঈশ্বরদীতে আওয়ামী লীগ ছাত্র লীগ সংঘর্ষঃ  নিহত ১

 

ঈশ্বরদী,পবানাঃ গতকাল (বাংলাদেশ ১৮ মার্চ) ঈশ্বরদীর মুলাডুলিতে হাটের ইজারাকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগ-ছাত্রলীগের সংঘর্ষ হয়েছে। এসময় গুলিবিদ্ধ হয়ে বাঁধন খন্দকার (২৬) নামের এক ছাত্রলীগ নেতার মৃত্যু হয়েছে। এ ঘটনায় কমপক্ষে ৫ জন আহত হয়েছে।


বুধবার দুপুর দেড়টার দিকে এ ঘটনা ঘটেছে। নিহত বাঁধন মুলাডুলি ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সভাপতি। তিনি একই থানার খন্দকারের ছেলে।

এদিকে  ঘটনার পর থেকে এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।

স্থানীয়রা জানান, মুলাডুলি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কামাল হোসেন মিটু ও ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মিলন খন্দকার গ্রুপের এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

দু’গ্রুপের সংঘর্ষ চলাকালে বিক্ষুব্ধরা দুইটি মোটরসাইকেলে অগ্নিসযোগ করেছে বলে জানান তারা।

ঈশ্বরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিমান কুমার দাস ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ক্ষমতাসীন দলের দু’গ্রুপের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে দলীয় কোন্দল ও আধিপত্য বিস্তার নিয়ে বিরোধ চলে আসছিল।

দুপুর দেড়টার দিকে স্থানীয় একটি হাটের ইজারা নিয়ে নুতন করে বিরোধ দেখা দেয়। এসময় উভয়গ্রুপ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এসময় গুলিবিদ্ধ হয়ে ছাত্রলীগ নেতা বাঁধন খন্দকার নিহত হন।

তিনি বলেন, ‘এ ঘটনায় পাঁচজন আহত হয়েছেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা জেনারেল হাপসাতালে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে।’

 

 

শনিবারে চিঠি / আটলান্টা/ ১৮ মার্চ ২০১৫

 

 

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ৬:৩২ অপরাহ্ণ | বুধবার, ১৮ মার্চ ২০১৫

https://thesaturdaynews.com |

Development by: webnewsdesign.com