অভিজিৎ হত্যা: এফবিআইয়ের কারিগরী সহায়তা চায় পুলিশ

রবিবার, ০৮ মার্চ ২০১৫

অভিজিৎ হত্যা: এফবিআইয়ের কারিগরী সহায়তা চায় পুলিশ

 

শনিবার রিপোর্টঃ লেখক ও ব্লগার অভিজিত রায়ের হত্যাকান্ড তদন্তে মার্কিন সংস্থা এফবিআইয়ের কাছ থেকে কারিগরী সহায়তা পাবার আশা করছে বাংলাদেশের পুলিশ।বিবিসি


গোয়েন্দা পুলিশের উপ-কমিশনার কৃষ্ণপদ রায় বিবিসি বাংলাকে বলেছেন, তদন্তকাজ দ্রুততর করা এবং অপরাধী চিহ্নিত করার মতো কিছু ক্ষেত্রে এফবিআইয়ের সহযোগিতা পাবার আশা করছেন তারা।

কৃষ্ণপদ. রায় বলেন, মামলার ডিটেকশনের কাজ সহজতর হয় এমন কিছু প্রযুক্তি বা যন্ত্রপাতি ব্যবহারের ক্ষেত্রে মার্কিন সংস্থাটি অনেক এগিয়ে আছে। এ ক্ষেত্রে কিছু সহায়তা তারা এফবিআইয়ের দলটির কাছ থেকে পেতে পারেন বলে তারা আশা করছেন।

সংস্থাটির চার সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল এখন বাংলাদেশে রয়েছে এবং তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শনও করেছে।

কৃষ্ণপদ রায় বিবিসি বাংলাকে বলেন, এফবিআইয়ের দলটি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করার পর কিভাবে এই তদন্তকাজে তারা সহায়তা করতে পারে তার নানা দিক খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

“বিশেষ করে কারিগরী এমন কোন সহযোগিতা করা যায় কিনা – যা দিয়ে তদন্ত দ্রুততর হবে – সে সম্ভাবনাগুলো দেখা হচ্ছে। সে ব্যাপারগুলো বিবেচনার জন্যই তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।” তবে কৃষ্ণপদ রায় বলেন, তদন্তের মূল কাজটি বাংলাদেশের তদন্ত সংস্থাকেই করতে হবে।

গত ২৬শে ফেব্রুয়ারি ঢাকায় একুশে বইমেলা থেকে ফেরার পথে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় একদল আক্রমণকারী অভিজিৎ রায় ও তার বান্ধবীকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে আহত করে। হসপাতালে নেবার পর অভিজিৎকে মৃত ঘোষণা করা হয়।

এ ঘটনার ‘প্রধান সন্দেহভাজন’ বলে কথিত ফারাবি শফিউল ইসলাম নামে এক ব্যক্তিকে ইতিমধ্যে পুলিশ গ্রেফতার করেছে।ফারাবি সামাজিক যোগাযোগ ওয়েবসাইটে অভিজিৎ রায়কে তার লেখালিখির জন্যএকাধিকবার হত্যার হুমকি দিয়েছিলেন বলে পুলিশ বলছে।

 

Facebook Comments Box

বাংলাদেশ সময়: ১১:২৫ পূর্বাহ্ণ | রবিবার, ০৮ মার্চ ২০১৫

https://thesaturdaynews.com |

Development by: webnewsdesign.com